রবিবার, মে ১৯Dedicate To Right News
Shadow

“লুঙ্গি” বিতর্কে স্টার সিনেপ্লেক্স!

Spread the love

গতকাল ৩ আগস্ট সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেসবুকে একজন প্রবীণ সিনেমা দর্শকের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায় যে, বয়োজোষ্ঠ্য একজন পুরুষ ঢাকার মিরপুরের সনি সিনেপ্লেক্সে “পরাণ” ছবির টিকেট ক্রয় করতে যান। সে সময় তিনি লুঙ্গি পরিহিত থাকায় তার কাছে টিকেট বিক্রি করা হয়নি। টিকেট না পেয়ে হতাশ হয়ে ফেরত যাবার সময় একটি ভিডিওতে তাকে বলতে শোনা যায়, তার লুঙ্গি পড়ার কারণে তার নিকট টিকেট বিক্রি করা হয়নি।

পরবর্তীতে এদিন রাতেই “পরাণ” ছবির নায়ক শরিফুল ইসলাম রাজ ফেসবুকে পোস্ট করেন যে, “এই বৃদ্ধ বাবার সন্ধান দিতে পারবেন কেউ? আমাকে শুধু ইনবক্সে তাঁর নাম্বার বা ঠিকানা ম্যানেজ করে দিন প্লিজ। আমি নিজে তাঁর সাথে আমার টিম নিয়ে বসে পরাণ দেখব। আমরা ছবিটা দেখব, বাবা-ছেলে গল্প করব। আমাকে কেউ একটু যোগাড় করে দেন প্লিজ। উনি লুঙ্গি পড়েই পরাণ দেখবে আমি এবং আমার টিম সহ।”

এ বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বেশ আলোড়ন তোলে ও সকলেই ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন। এর প্রেক্ষিতে আজ ৪ আগস্ট স্টার সিনেপ্লেক্স তাদের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এক বিবৃতিতে বলেছে যে, “স্টার সিনেপ্লেক্স পরিবারের পক্ষ থেকে আমরা জানাতে চাই, আমরা গ্রাহকদের সাথে কোনো কিছুর উপর ভিত্তি করে বৈষম্য করি না। আমাদের সংস্থায় এমন কোনো নিয়ম বা নীতি নেই যা একজন ব্যক্তিকে লুঙ্গি পরার কারণে টিকিট কেনার অধিকারকে অস্বীকার করবে। আমরা জানাতে চাই, আমাদের সিনেমা হলে সবাই নিজেদের পছন্দের সিনেমা দেখার জন্য সবসময় স্বাগতম। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারিত ঘটনাটি সম্ভবত একটি দুর্ভাগ্যজনক ভুল বোঝাবুঝির ফলাফল। আমরা এই ঘটনাটি ঘটতে দেখে গভীরভাবে দুঃখিত এবং আমাদের নজরে আনার জন্য সংশ্লিষ্ট পক্ষের প্রতি কৃতজ্ঞ। আমরা, স্টার সিনেপ্লেক্স পরিবার, আমাদের গ্রাহকদের সেরা সিনেমাটিক অভিজ্ঞতা দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ এবং আমরা এই ভদ্রলোককে তাঁর পরিবারের সাথে আমাদের সনি স্কয়ার শাখায় “পরাণ” দেখার জন্য আন্তরিকভাবে আমন্ত্রণ জানাই। এছাড়াও, আমরা এই ঘটনাটি তদন্ত করছি যেন ভবিষ্যতে এই ধরনের ভুল বোঝাবুঝি না হয়। আমাদের সাথে থাকার জন্য আপনাদের সকলকে ধন্যবাদ।”

“পরাণ” ছবির নায়ক শরিফুল ইসলাম রাজ ফেসবুকে তার হোম পেজে স্টার সিনেপ্লেক্সের বিবৃতিটি শেয়ার করে ধন্যবাদ জানিয়েছে। এর মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট সকলে আশা করছেন যে, এর মাধ্যমে লুঙ্গি পড়া নিয়ে বিতর্কের অবসান হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *