সোমবার, মে ২৭Dedicate To Right News
Shadow

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে বর্ষবরণ

Spread the love

আজ বাংলা নববর্ষ ১৪৩১ এর প্রথম দিন, পহেলা বৈশাখ। বাঙালির প্রাণের বৈশাখ, বরণে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে সকাল ১১.০০ টায় অনুষ্ঠিত হয়েছে লোকসাংস্কৃতিক পরিবেশনা। জাতীয় সঙ্গীত ও নৃত্যকলা কেন্দ্র মিলনায়তনে আয়োজিত বর্ষবরণের আলোচনায় প্রধান আলোচক ছিলেন মফিদুল হক, বিশিষ্ট প্রাবন্ধিক এবং ট্রাস্টি, মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির সচিব সালাহউদ্দিন আহাম্মদ।

আলোচনায় বক্তারা বলেন, “বাঙালির চেতনাবোধ প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে ছড়িয়ে দিতে নানামুখী আচার অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পহেলা বৈশাখের ঐতিহ্য তুলে ধরতে হবে। বাঙালির অসাম্প্রদায়িক উৎসব পহেলা বৈশাখ নানান রঙে, নানান রুপে কল্যাণ হয়ে ফিরে আসুক সকলের মাঝে” ।

সংক্ষিপ্ত আলোচনা পর্বের পর শুরু হয় বর্ষবরণ অনুষ্ঠান। শুরুতেই পরিবেশিত হয় সমবেত সঙ্গীত ”তুমি নির্মল করো, মঙ্গল করে”, পরিবেশন করে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির শিশু সঙ্গীত দল। পরিচালনায় ছিলেন মুহাম্মদ আনিসুর রহমান। এরপর সমবেত “নৃত্য এসো হে বৈশাখ এসো এসো” পরিবেশন করে স্পন্দন নৃত্যদল, নৃত্য পরিচালনা করেছেন অনিক বোস।

একাডেমির নৃত্যশিল্পী এস কে জাহিদ এর পরিচালনায় সমবেত ঢাক নৃত্য পরিবেশন করে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির প্রতিশ্রুতিশীল নৃত্যদল। এরপর বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির বিশেষ পরিবেশনা কালচারাল হেরিটেজ অনুষ্ঠিত হয়। পরিচালনায় ছিলেন খন্দকার ফরহানা রহমান।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির শিশু নৃত্যদল পরিবেশন করে সমবেত নৃত্য “আমরা সুন্দরের অতন্দ্র প্রহরী”, পরিচালনা করেন এস কে জাহিদ। সবশেষে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির শিশু সঙ্গীত দল পরিবেশন করে সমবেত সঙ্গীত “এসো হে বৈশাখ এসো, এসো,” অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন তামান্না তিথী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *