সোমবার, মে ২৭Dedicate To Right News
Shadow

স্টার সিনেপ্লেক্সে ‘দ্য লস্ট সিটি’

Spread the love

২৫ মার্চ আন্তর্জাতিকভাবে মুক্তি পেতে যাচ্ছে হলিউডের আলোচিত ছবি ‘দ্য লস্ট সিটি’। সেন্সর ছাড় সাপেক্ষে একই দিনে বাংলাদেশের স্টার সিনেপ্লেক্সে মুক্তি পাবে ছবিটি। রোমান্স, অ্যাকশন, অ্যাডভেঞ্চার ও কমেডির সংমিশ্রণে নির্মিত এ ছবি পরিচালনা করেছেন অ্যাডাম নি ও অ্যারন নি ভাতৃদ্বয়। ২০১৫ সালে তাদের ‘ব্যান্ড অব রবার্স’ ছবির মধ্য দিয়ে খ্যাতি অর্জন করেন তারা। এ ছাড়া তারা পরিচালনা করেছেন হি-ম্যান ও দ্য মাস্টার্স অব দ্য ইউনিভার্স ছবিগুলো। নতুন ছবি ‘দ্য লস্ট সিটি’ নিয়ে বেশ আশাবাদী তারা। বড় বড় তারকার পাশাপাশি এ ছবির গল্পসহ অনেকগুলো আকর্ষণীয় দিক রয়েছে। ছবিতে একসঙ্গে দেখা যাবে হলিউডের দুই সুপারস্টার স্যান্ড্রা বুলক ও ব্র্যাড পিটকে। যদিও ছবির নায়ক চ্যানিং টাটুম তবুও অস্কারজয়ী এই দুই তারকাকে এক ছবিতে দেখা ভক্তদের কাছে বিরাট আকর্ষণীয় ব্যাপার। অবশ্য শুরুতে শোনা গিয়েছিল, এ ছবিতে ফের জুটি হচ্ছেন স্যান্ড্রা বুলক ও রায়ান রেনল্ডস। পরে দৃশ্যপটে আসেন চ্যানিং টাটুম। অভিনয়ের পাশাপাশি নিজের ফর্টিস্ট ফিল্মসের ব্যানারে ছবিটি প্রযোজনা করেছেন স্যান্ডা বুলক। অন্যদিকে, ‘হ্যারি পটার’খ্যাত অভিনেতা ড্যানিয়েল র‌্যাডক্লিফও রয়েছেন এ ছবিতে। গোল চশমা, মিষ্টি হাসি, সারল্য ভরা মুখ, জনপ্রিয় জাদুকর সে সব দিন গিয়েছে। নতুন চরিত্র নিয়ে কাজ করা গুরুত্ব পেয়েছে তার কাছে। ‘হ্যারি পটার’-এর ভাবমূর্তি ভাঙতে চান ড্যানিয়েল র‌্যাডক্লিফ। তাঁর প্রমাণ আগেই পাওয়া গিয়েছিল। ‘সুইস আর্মি ম্যান’, ‘দ্য উওম্যান ইন ব্ল্যাক’, ‘কিল ইয়র ডার্লিংস’ ছবিগুলোতে তিনি নিজের অন্য রূপ সামনে এনেছেন। ‘দ্য লস্ট সিটি’ ছবিতে এবার খলনায়কের চরিত্রে অবতীর্ণ হবেন তিনি।

ছবিতে স্যান্ড্রা বুলকের চরিত্র একজন সফল রোমান্স কাহিনি লেখিকার, যাকে ভয়ংকর এক গুপ্তধন শিকারি অপহরণ করে নিয়ে যায় এবং এক অভিযানে যেতে বাধ্য করে। শিকারির বিশ্বাস, লেখিকার নতুন বইয়ে যে হারানো শহরের কথা বলা হয়েছে বাস্তবে তার অস্তিত্ব আছে এবং লেখিকা সেটা জানেন। তাই লেখিকাকে নিয়ে সেই শহরের সন্ধানে বের হন তারা। ধরে আনা হয় এক মডেলকে, যে চরিত্রে অভিনয় করেছেন চ্যানিং টাটুম। জঙ্গলের মাঝে উপন্যাসের এক কল্পিত শহরের খোঁজে অভিযান শুরু হয়। মুখোমুখি হয় ভয়ংকর সব ঘটনার। তারা বুঝতে পারে বাস্তব জীবন গল্পের চেয়েও অদ্ভুত ও রোমান্টিক। ছবির সাফলের‌্য ব্যাপারে দারুণ আত্মবিশ্বাসী স্যান্ড্রা। ট্রেলার প্রকাশের পর থেকে দর্শকদের আগ্রহ তাকে উচ্ছ্বসিত করে। হলিউডের কয়েকটি নামকরা পত্রিকার রিভিউয়ে যথেষ্ট ইতিবাচক সাড়া পেয়েছে ছবিটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *