সোমবার, জুলাই ২২Dedicate To Right News
Shadow

বেদখলকৃত জমি ফিরে পেতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করলেন ​১৮০ জন ভূমি মালিক

Spread the love

সাতক্ষীরা জেলার ​দেবহাটা উপজেলার খলিশাখালী এলাকার বেদখলকৃত জমি ফিরে পেতে চান জমির মালিকগণ। গত ২২ অক্টোবর ঢাকার শ্যামলীর সীমান্ত কনফারেন্স রুমে এক সংবাদ সম্মেলনে তারা এ দাবী জানান।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, সাতক্ষীরা জেলার ​​দেবহাটা উপজেলার পারুলিয়া মৌজার খলিশাখালী নামীয় ব্যক্তি মালিকানাধীন জমি ভূমিহীন নামধারী অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা ১৩০০ বিঘা ব্যক্তি মালিকানাধীন জমির ঘের দখল, মাছ লুটপাঠ এবং ঘেরে বাসা বাড়ি ভাংচুর করছে। সকল দালিলিক প্রমাণ থাকা সত্ত্বেও কিছু প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও সুযোগ সন্ধানী নামধারী পাতিনেতাদের যোগসাজেশে ১৮০ জন সাধারণ দরিদ্র মানুষ তাদের জমি ফিরে পাচ্ছে না।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত আলহাজ আনসার আলী মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে রেকর্ডীয় মালিকানাধীন প্রাপ্য জমি সন্ত্রাসীদের কবল থেকে ফেরত পাওয়ার জন্য আকুল আবেদন জানান।

তিনি বলেন, আমরা ভুক্তভোগীরা ঐ অঞ্চলের সাধারণ জনগণ। আমরা অত্যন্ত ভীতিকর পরিস্থিতির মধ্যে বসবাস করছি এবং আমাদের প্রাণ সংশয়ের আশংকা করছি।

তিনি আরো বলেন, গত ৩ অক্টোবর অভিযোগের ভিত্তিতে আশাশুনি থানার দুইজন এ.এস.আইসহ পুলিশ কর্মকর্তা কিছু মাদক ব্যবসায়ীদের গ্রেফতার করতে গেলে এসকল ভূমিদস্যুরা তাদেরকে বেঁধে রাখে নির্যাতন চালায়। ঐ এলাকার জবরদখলকারী ভূমি সন্ত্রাসীরা মাদক ব্যবসা, গুম, হত্যা, চোরাচালান, নারী ও শিশু পাচার, ডাকাতিসহ সকল অপকর্ম করে যা আমাদের সন্তানদেরসহ দেশের ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে অকাল ও করুণ মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে আরো জানান হয় যে, সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক তাদের বিষয়টি অবগত হয়ে জমির কাগজপত্র পর্যবেক্ষণ করে জমির মালিকদের ন্যায্য অধিকারের পক্ষে কথা বলেছেন। তবে এখনো পর্যন্ত দৃশ্যমান কোনো উদ্যোগ পরিলক্ষিত হয়নি। এ ছাড়াও পুলিশ প্রশাসন এ ব্যাপারে যথাযথ উদ্যোগ না নিয়ে অদৃশ্য কারণে নিস্ক্রিয় রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *